কম্পিউটারের ইতিহাস সম্পর্কে বিস্তারিত বর্ণনা

কম্পিউটারের ইতিহাস

কম্পিউটার বা গণকযন্ত্র

কম্পিউটার (Computer) শব্দটি গ্রিক “কম্পিউট” (Compute) শব্দ থেকে এসেছে যার অর্থ হিসাব বা গণনা করা। আর কম্পিউটার (Computer) বলতে বুঝায় যা গননা কররে পারে বা গণনাকারী যন্ত্র। কিন্তু এখন কম্পিউটারকে শুধু গণনাকারী যন্ত্র বলা যায় না। কম্পিউটার এমন এক যন্ত্র যা তথ্য গ্রহণ করে এবং বিভিন্ন প্রক্রিয়ার মাধ্যমে তা বিশ্লেষণ ও উপস্থাপন করে। সভ্যতার বিকাশ এবং বর্তমানে তার দ্রুত অগ্রগতির মূলে রয়েছে গণিত ও কম্পিউটারের প্রবল প্রভাব। বাংলাদেশে প্রথম কম্পিউটার আসে ১৯৬৪ সালে। কম্পিউটারের ইতিহাস সম্পর্কে নিচে দেওয়া হলো।

কম্পিউটারের ইতিহাস

পৃথিবীর প্রথম কম্পিউটার ENIAC-Electronic Numerical Integrator and Computer (এনিয়াক)। কম্পিউটার আবিষ্কারের পূর্বে বিভিন্ন গগনাযন্ত্র বিভিন্ন সময়ে গগণার কাজে ব্যবহৃত হলেও অ্যাবাকাস-(Abacus)-কেই প্রথম গণনাযন্ত্র হিসেবে ধরা হয়। ইতিহাস থেকে জানা যায় খৃষ্টপূর্ব ২৪ সালে ব্যবিলনে অ্যাবাকাস আবিষ্কৃত হয়।

ঊনিশ শতকের শুরুর দিকে আধুনিক কম্পিউটারের ধারণা দেন চার্লস ব্যাবেজ

কম্পিউটারের জনক কে?

কম্পিউটার তৈরির প্রথম ধারণা দেন বিজ্ঞানী চার্লস ব্যাবেজ। ১৮৩৩ সালে সর্বপ্রথম এ্যানালটিক্যাল ইঞ্জিন (Analytical Engine) নামে একটি যান্ত্রিক Computer তৈরীর পরিকল্পনা গ্রহণ করেন এবং ইঞ্জিনের নকশা তৈরী করেন। পরবর্তীকালে তাঁর তৈরি নকশা ও কম্পিউটারের ওপর ভিত্তি করেই আজকের আধুনিক কম্পিউটার তৈরি করা হয়। তার এই এ্যানালটিক্যাল ইঞ্জিনের পরিকল্পনায় আধুনিক কম্পিউটারের ধারণা ছিল বলেই চার্লস ব্যাবেজকে কম্পিউটারের জনক বলা হয়।

অন্যদিকে, জন ভন নিউম্যানকে আধুনিক কম্পিউটারের জনক বলা হয়। তিনি একজন হাঙ্গেরীয় বংশোদ্ভুত মার্কিন গণিতবিদ। নিউম্যান কোয়ান্টাম বলবিদ্যায় অপারেটর তত্ত্ব ব্যবহারের অগ্রদূত। তিনি সেটতত্ত্ব, জ্যামিতি, প্রবাহী গতিবিদ্যা, অর্থনীতি, যোগাশ্রয়ী প্রোগ্রামিং, কম্পিউটার বিজ্ঞান, পরিসংখ্যান সহ আরো অনেক ক্ষেত্রে অবদান রেখেছেন।

১৯৭১ সালে মাইক্রোপ্রসেসর উদ্ভাবন করার পর থেকে বাজারে আসতে শুরু করে মাইক্রোপ্রসেসর ভিত্তিক কম্পিউটার। ১৯৮১ সালে বাজারে আসে IBM- (International Business Machines) কোম্পানির পার্সোনাল কম্পিউটার বা পিসি। একই সময় আই.বি.এম (IBM)-এর পাশাপাশি Apple কোম্পানি তাদের উদ্ভাবিত অ্যাপল-ম্যাকিন্টোশ কম্পিউটার বাজারে ছাড়ে।

বর্তমানের কম্পিউটারের আগে আবিষ্কৃত বিভিন্ন ধরণের গগণাযন্ত্র

অ্যাবাকাস

ইতিহাসের’র প্রথম বা প্রাচীনতম গণনাযন্ত্র হিসেবে পরিচিত। অ্যাবাকাস পাটিগাণিতিক গণনা সম্পাদনের একটি প্রাচীন যন্ত্র, যাতে একটি কাঠের ফ্রেমের বসানো তারে লাগানো গুটি উপরে নিচে সরিয়ে গণনা করা হয়ফ্রেমে বসানো একটি তারের উপর গুটিগুলি বসানো থাকে। তারগুলির সাথে লম্বভাবে একটি আড়াআড়ি দণ্ড থাকে যা গুটিগুলিকে দুইভাগে ভাগ করে। খৃষ্টপূর্ব ৩০০০ সালে ব্যাবিলনে এটি আবিষ্কৃত হয়েছিল। এবাকাস কে চীনে সুয়ান পান (Suan-pan) আর জাপানে সরোবান (Soroban) বলে।

Difference Engine: ক্যামব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের গণিত বিভাগের অধ্যাপক চার্লস ব্যাবেজ এনালাইটিক্যাল ইঞ্জিন ও Difference Engine তৈরি করেন। ব্যাবেজের এনালাইটিক্যাল ইঞ্জিনের ধারণাকে আধুনিক কম্পিউটারের সূত্র হিসেবে বিবেচনা করা হয়। এজন্য চার্লস ব্যাবেজকে আধুনিক কম্পিউটারের জনক হিসেবে অভিহিত করা হয়।  

ট্রানজিস্টর

আমেরিকার তিন জন গবেষক জন বারডিন, ওয়াল্টার ব্রাটেইন ও উইলিয়াম শকলে একত্রে গবেষণা করে ১৯৪৮ সালে ট্রানজিস্টর আবিষ্কার করেন।

আই.সি. (I.C)

জ্যাক কিলবি ১৯৫৮ সালে ট্রান্জিস্টর, রেজিস্টর ও ক্যাপাসিটর এর সমন্বয়ে আই.সি. বা Integrated Circuit আবিষ্কার করেন। প্রথম আইসি (Integrated Circuit) ভিত্তিক কম্পিউটার বাজারে আনে বারোগস কর্পোরেশন ১৯৬৮ সালে B2500 ও B3500 নামে।

মাইক্রোপ্রসেসর

১৯৭১ সালে যুক্তরাষ্ট্রের ইন্টেল কর্পোরেশনের গবেষক ড. টেড হফ-এর তত্ত্বাবধানে প্রথম মাইক্রোচিপ বা মাইক্রোপ্রসেসর “Intel-4004” বাজারে আনে যা বিশ্বের প্রথম বাণিজ্যিক মাইক্রোচিপ বা মাইক্রোপ্রসেসর।

ডস বা Disk Operating System-DOS

১৯৮১ সালে ব্যক্তিগত কাজে ব্যবহারের জন্য IBM কোম্পানি প্রথম DOS-ভিত্তিক অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহার করে। ১৯৮৩ সালে অ্যাপল কোম্পানি প্রথম গ্রাফিক্যাল ইউজার ইন্টারফেস ভিত্তিক কম্পিউটার তৈরি করে। ১৯৮৫ সালে মাইক্রোসফট কোম্পানি প্রথম ইউন্ডোজ ভিত্তিক অপারেটিং সিস্টেম চালু করে।

 

কম্পিউটার ও তথ্যপ্রযুক্তি সম্পর্কিত গুরুত্বপূর্ণ সংক্ষিপ্ত শব্দের পূর্ণরূপ জেনে নিন

Leave a Comment

Your email address will not be published.